শেখপুরা বাজার সংলগ্ন আঠারোবেকি নদীতে ড্রাম সেতু নির্মাণ করলেন এমপি সালাম মূর্শেদী

Spread the love

শেখপুরা বাজার সংলগ্ন আঠারোবেকি নদীতে ড্রাম সেতু নির্মাণ করলেন এমপি সালাম মূর্শেদী

তেরখাদা প্রতিনিধি: মো: রবিউল ইসলাম

আঠারোবেকি নদীতে ড্রাম সেতু নির্মাণ করলেন এমপি সালাম মূর্শেদী,খরস্রোতা আঠারোবেকির সেই যৌবন এখন আর নেই। তবুও বিভক্ত করে রেখেছে নদীর দু’পাড়ের বাসিন্দাদের। এই বিভক্ত জনবসতির যাতয়াত ও জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে তেরখাদা-রূপসাবাসীর মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরি হয়েছে প্লাটিকের ভাসমান ড্রামে।

খুলনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুস সালাম মূর্শেদীর অর্থায়নে নির্মিত অত্যাধুনিক ভাসমান ড্রামের উপর দিয়েই মিলিত হবে দু’পাড়ের বাসিন্দারা। এতে তেরখাদা ও রূপসা উপজেলার বাসিন্দাদের যাতয়াত ব্যবস্থা ও জীবনযাত্রা উন্নয়নে বিশেষ ভূমিকা রাখবে বলে প্রত্যাশা স্থানীয়দের। তেরখাদা-রূপসাবাসীর জন্য খুলনার প্রথম ভাসমান ড্রাম সেতু নির্মাণ করে দিতে পেরে খুশি সংসদ সদস্য আব্দুস সালাম মূর্শেদীও।

সূত্রে জানা গেছে, তেরখাদার আজগড়া ইউনিয়নের শেখপুরা বাজার সংলগ্ন আঠারোবেকি নদীর উপরে খুলনার একমাত্র ড্রামের সেতু। যা খুলনা শহর থেকে ২০ কিলোমিটার দুরত্বে। এর পশ্চিম পাশে তেরখাদা উপজেলার আজগড়া ইউনিয়নের শেখপুরা বাজার

এবং পূর্বপাশে রূপসা উপজেলার ঘাটভোগ ইউনিয়নের শিয়ালী বাজার।
ড্রাম সেতুর কল্যাণে এলাকার চিত্র বদলাতে শুরু করচ্ছে । সেতুকে কেন্দ্র করে অনেক ইজিবাইক চালক আত্মকর্মসংস্থানে নেমেছে। জরুরি চিকিৎসার রোগী, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীসহ দিনমজুররা ড্রামের সেতু দিয়ে পারাপারের সুযোগ নিয়ে নিজেদের প্রয়োজন মেটাচ্ছে।
গত ২৯ ডিসেম্বর ড্রাম সেতু নির্মাণ কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য আব্দুল সালাম মূর্শেদী। নতুন বছরেই ড্রাম সেতুটির কাজ সম্পন্ন হবে বলে আশাবাদী সংশ্লিষ্টরা।
তেরখাদা উপজেলা আ’লীগের সভাপতি ইউপি চেয়ারম্যান এফএম অহিদুজ্জামান বলেন, দুই উপজেলার মানুষের সেতুবন্ধন এই ভাসমান ড্রাম সেতু দিয়ে বিপুল জনগোষ্ঠি বিনা টোলে নদী পার হতে পারছেন। সংসদ সদস্য আব্দুস সালাম মূর্শেদীর ব্যক্তিগত অর্থায়নে প্লাস্টিকের ড্রাম, কাঠ ও বাঁশ দিয়ে নির্মাণ করা হয়েছে সেতুটি। এতে বিপুল জনগোষ্ঠি উপকৃত হচ্ছে।
তেরখাদা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ শহীদুল ইসলাম বলেন, সেতুটির ফলে রূপসা, তেরখাদা ও ফকিরহাটের মানুষ উপকৃত হচ্ছে। তদারকির জন্য নির্ধারিত লোকও থাকবে।
খুলনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুস সালাম মূর্শেদী বলেন, তেরখাদা ও রূপসা উপজেলার হাজারো মানুষের উপকারের কথা চিন্তা করে আমি ব্যক্তিগতভাবে ভাসমান ড্রামের সেতু নির্মাণ করে দিয়েছি। এ সেতু পারাপারে উপকার পাচ্ছে হাজার হাজার মানুষ।
ইতিমধ্যে এ নদীর ওপর ব্র্রিজ নির্মাণের বিষয়টি পাস হয়েছে। ব্রিজটি নির্মাণের আগ পর্যন্ত জনসাধারণের যেন ভোগান্তি না পোহাতে হয় সেজন্য ভাসমান আধুনিক ড্রাম সেতুটি করা হয়েছে।

     More News Of This Category

ফেসবুক