যাত্রা শিল্পকে বাঁচাতে নবীণ-প্রবীণ শিল্পীদের বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

Spread the love

শেখ খায়রুল ইসলাম পাইকগাছা খুলনা প্রতিনিধি :
যাত্রা শিল্পকে বাঁচাতে বহুদিন পর খুলনার পাইকগাছায় নবীন-প্রবীন যাত্রা শিল্পীগণ একত্রিত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার সকালে পৌরসভাস্থ সরল টাউন স্কুল শিল্পীরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে বঙ্গবন্ধু যাত্রা শিল্পী ঐক্য পরিষদের ব্যানারে ত্রী বার্ষিক সন্মেলন-২১ সম্পন্ন করেছেন। সন্মেলনে খ্যাতনামা যাত্রা শিল্পী ও মুক্তিযোদ্ধা জি,এম,জামির হোসেন সভাপতি, শিবপদ মন্ডল সাধারন সম্পাদক ও বিকাশ চন্দ্র মন্ডলকে কোষাধ্যক্ষ করে ৩১ সদস্য বিশিষ্ট উপজেলা বঙ্গবন্ধু যাত্রা শিল্পী ঐক্য পরিষদের কমিটি গঠন করা হয়। সন্মেলনে শিল্পীরা বলেন, বাঙালী শিল্প-সংস্কৃতির সঙ্গে অঙ্গা-অঙ্গি ভাবে মিশে আছে যাত্রা শিল্প। কিন্তু যাত্রা জগৎ আজ ধ্বংশের দারপ্রান্তে। চর্চা না থাকায় নতুন শিল্পী তৈরী হচ্ছেনা। অভাব অনাটনে পড়ে শিল্পীরা অনেকে পেশা বদল করেছেন। মহামারী করোনায় পরিস্থিতি খারাপ হয়েছে। শিল্পীরা প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে জানান,করোনাকালে সরকার সারা দেশের ন্যায় পাইকগাছার যাত্রা শিল্পীদের জন্য বড় অংকের অর্থ বরাদ্দ দিয়েছেন। উক্ত সন্মেলনে বীর মুক্তিযোদ্ধা জি,এম, জামির হোসেন এর সভাপতিত্বে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা আশাশুনির রাজমহল অপেরার মালিক মুক্তিযোদ্ধা লিয়াকত আলী,মুক্তিযোদ্ধা দীনেশ চন্দ্র মন্ডল, অজয় সরকার,যাত্রা লক্ষী চন্দ্রা ব্যানার্জী,কন্ঠ শিল্পী কৃষ্ণা ব্যানার্জী, প্রশান্ত কুমার,শিবপদ মন্ডল, বিজন বিহারি সরকার,গাজী শহিদুল ইসলাম,গাজী মিজানুর রহমান,প্রভাষক বিকাশ চন্দ্র মন্ডল, প্রশান্ত শীল,সুনিতা রানী রায়,প্রভাষক শংকর সরকার,প্রশান্ত কুমার টুলু,রেবা চক্রবর্তী,দ্বীপ্তি রানী, বিষ্ণুপদ রায়,অমীয় শীল,বিবেকান্দ, দেবাশীষ সহ আরও অনেকে।

     More News Of This Category

ফেসবুক