নওগাঁয় শিশু পাশবিক নির্যাতনের ঘটনায় তিন কিশোরকে আটক

নওগাঁ প্রতিনিধিঃ নওগাঁয় ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর দ্বিতীয় শ্রেনীর এক শিশু পাশবিক নির্যাতনের ঘটনায় ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর তিন কিশোরকে আটক করেছে পুলিশ। ঘটনার পর ওই শিশু নওগাঁ সদর হাসপাতালের গাইনি ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন।মঙ্গলবার (১১ জানুয়ারী) বেলা ১২টার দিকে আটককৃতদের বিজ্ঞ আদালতে নিয়ে যাওয়া হলে তাদের কে যশোর সেভ হোমে পাঠানোর নির্দেশ দেয়। গত ৯ জানুয়ারী সদর উপজেলার বর্ষাইল ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে।

নির্যাতনে শিকার শিশুর বাবা বলেন, গত ৯ জানুয়ারী আমরা বাড়ি ছিলাম। দরিদ্র হওয়ায় মাঠে কাজ করতে গিয়েছিলাম। মেয়েটি বাড়ির পাশে অন্য শিশুদের সঙ্গে খেলা করছিল। খেলা শেষে বাড়ির পশ্চিম পাশে একটু দুরে দুপুর ১টার দিকে একা প্লাস্টিক কুড়াচ্ছিল। এসুযোগে প্রতিবেশীর তিন ছেলে আমার মেয়ের মুখ চেপে ধরে জোর পূর্বক তাদেরই একজনের বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে পাশবিক নির্যাতনের পর মেয়েকে ফেলে তারা পালিয়ে যায়। পরে ওই বাড়ি থেকে মেয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় কান্না করতে করতে বেরিয়ে আসে।

এসময় এক প্রতিবেশি বিষয়টি বুঝতে পেরে আমাদের জানায়। দুপুর ২ টার দিকে বাড়ি এসে দেখি মেয়ের শারীরিক অবস্থা অনেক খারাপ হয়েছে। বিকেলেই তাকে নওগাঁ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্তরা পালিয়ে ছিল।
তিনি বলেন, সোমবার বিকেলে বাদী হয়ে ওই জনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করি। এখনো ব্লিডিং হচ্ছে। তবে আগের চাইতে মেয়ের অবস্থা অনেকটা ভাল।

নওগাঁ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম বলেন, নির্যাতনে শিকার শিশুর বাবা বাদী হয়ে সোমবার থানায় মামলা করেন। মামলার পর এলাকা থেকে তিন কিশোরকে আটক করা হয়। মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে আটককৃতদের বিজ্ঞ আদালতে নিয়ে যাওয়া হলে তাদের কে সেভ হোমে পাঠানোর নির্দেশ দেয়।

     More News Of This Category

ফেসবুক