খুলনায়”-বিএনপি ও পুলিশ-ছাত্রলীগের সংঘর্ষের ঘটনায় আসামী ৮০০শ”গ্রেফতার ৪১,

খুলনা প্রতিনিধি: খুলনায় “-বিএনপি ও পুলিশ-ছাত্রলীগের সংঘর্ষের ঘটনায় কেন্দ্রীয় নেতা বকুলসহ আসামী ৮০০শ, গ্রেফতার-৪১।বিএনপির কেন্দ্রীয় কর্মসূচি পালনকালে গতকাল ২৬শে মে”-বৃহস্পতিবার বিকেলে সৃষ্ট সংঘর্ষের ঘটনায় এস আই বিশ্বজিৎ কুমার বসু বাদী হয়ে ৯২ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত ৮০০শ’ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেছেন।
এজাহারনামীয় আসামীদের মধ্যে ৪১জনকে গ্রেফতার দেখিয়ে শুক্রবার (২৭ মে) জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
এছাড়া এজাহার নামীয়দের মধ্যে বিএনপি নেতা আলহাজ্ব রকিবুল ইসলাম বকুলসহ অন্যদের পলাতক দেখানো হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ২০ টুকরা ইটের টুকরা, ১২টি কাঠের আছাড়ি ও ৫টি লোহার রড জব্দ দেখানো হয়েছে।
এজাহারভুক্তরা হলেন নগর বিএনপির সদস্য সচিব শফিকুল আলম তুহিন (৫৫), রূপসার জোয়ার এলাকার আব্দুর রশিদের ছেলে মোঃ রনি শেখ (২৬), মোঃ হাফিজুর রহমান (৩৯), মোঃ মালেক খা (২৯),মোঃ আবু জাফর (৬২),
মোঃ আসাদ মোল্লা (৫৮), দৌলতপুরের দেয়ানার শেখ খালিদ বিন ওয়ালিদ শোভন (২৬), মোঃ সাইফুল ইসলাম (৪৮), শেখ মোঃ রুবেল হোসেন (৩৫), মেঃ তিতাস শেখ (৩২), শেখ সরোয়ার হোসেন (৫৩), মোঃ রেজাউল ইসলাম (২২), আলী আজগর সরদার (২৭), মোঃ উজ্জল মোল্লা (৩০), ইমরান বিশ্বাস (২২), মোঃ শহিদুল ইসলাম (৫২),
দিঘলিয়ার ফরমেজ খামার এলাকার মৃত জয়নাল আবেদীনের ছেলে রহিউল ইসলাম (৩৮), নয়ন সরদার (২০), মোঃ বোরহান আলী আকুঞ্জি (৩৬), সাইফুল ইসলাম (৩৪), আবু সালেহ শিমুল (২৫), ছেলে মোঃ দুলাল (২৫), মোঃ লিটন ফকির (৩৪), সুমন মীর (৪৩), মোল্লা তরিকুল ইসলাম (২০),
সাজ্জাত হোসেন জিতু (৩০), আলম নুরু (৪৮), মোঃ সোবহান খান (৪০), মোঃ কদর শিকদার (২০), কাওসারী জাহান মঞ্জু (৪৮), শারমিন আক্তার (২৮), মরিয়ম খাতুন মুন্নি (৪০), ইভা জামান, মনি (৪০), রুকাইয়া দোলা (২৫), রুবিনা (৩২), কাজলী (৩৭), আনজিরা খাতুন (৬৯), পাপিয়া আক্তার পারুল (৫৩), আফরোজা জামান (৫২), সৈয়দা রেহেনা আক্তার (৭৩)।

     More News Of This Category

ফেসবুক